সরকারি ঘর দেওয়ার নামে টাকা নেওয়ার অভিযোগ আ. লীগ নেতার বিরুদ্ধে - লালসবুজের কণ্ঠ
    মঙ্গলবার, ০৯ অগাস্ট ২০২২, ০৪:৪৪ পূর্বাহ্ন
    শিরোনাম

    সরকারি ঘর দেওয়ার নামে টাকা নেওয়ার অভিযোগ আ. লীগ নেতার বিরুদ্ধে

    • আপডেটের সময় : শনিবার, ৪ জুন, ২০২২

    ঝালকাঠি প্রতিনিধিঃ


    ঝালকাঠির রাজাপুরে সরকারি ঘর পাইয়ে দেয়ার কথা বলে মো. অহিদুল ইসলাম শরীফ নামে এক আওয়ামীলীগ নেতা নগদ টাকা হাতিয়ে নিয়েছে অভিযোগ পাওয়া গেছে।

    উপজেলার গালুয়া ইউনিয়নের ৩নং ওয়ার্ডের বাসিন্দা স্বামী পরিত্যক্তা দুই সন্তানের জননী ফেরদৌসী বেগম এ অভিযোগ করেন। অভিযোগ পেয়ে ব্যবস্থা নেয়ার প্রতিশ্রুতি দিলেন উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা।

    অভিযুক্ত অহিদুল ইসলাম শরীফ উপজেলার গালুয়া দুর্গাপুর এলাকার তোফাজ্জেল হোসেন শরীফের ছেলে ও গালুয়া ইউনিয়ন আওয়ামীলীগের সাধারণ সম্পাদক। অপর দিকে অভিযোগকারী ফেরদৌসী বেগম একই এলাকার মৃত আব্দুল লতিফ মুন্সীর মেয়ে।

    অভিযোগে ফেরদৌসী জানায়, ১২ বছর পূর্বে তার স্বামী দুই সন্তান রেখে চলে যায়। সেই থেকেই ফেরদৌসী তার বাবার বাড়িতে বাবার দেয় জমিতে ছোট একটি বাশখুটির ঘরের মধ্যে দুই সন্তান নিয়ে বসবাস করেন।

    স্থানীয় আওয়ামীলীগ নেতা অহিদুল ইসলাম শরীফ পাঁচ লাখ টাকা দামের একটি সরকারি ঘর ফেরদৌসীকে পাইয়ে দেয়ার কথা বলে তার কাছে পঞ্চাশ হাজার টাকা বাদী করে।

    ফেরদৌসী ধার-দেনা করে কয়েক বারে ছয়ত্রিশ হাজার টাকা ম্যানেজ করে অহিদুল ইসলাম শরীফকে দেয়। টাকা দেয়ার পরে তিন বছর ধরে ঘর দেব দেব বলে ফেরদৌসীকে ঘুরাতে থাকে।

    এখন টাকা ফেরত চাইলে অহিদ শরীফ ফেরদৌসীকে জানায় ‘তোর টাকা ইউএনও খেয়েছে আমি কিভাবে দিব’। পরে নিরুপায় হয়ে আ.লীগ নেতার বিরুদ্ধে ফেরদৌসী বেগম উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তার কাছে লিখিত অভিযোগ করেন।

    এ ব্যাপারে অভিযুক্ত আওয়ামীলীগ নেতা মো. অহিদুল ইসমাল শরীফ অভিযোগ অস্বীকার করে জানায়, একটি মহল আমাকে সমাজে হেয় প্রতিপন্ন করতে দীর্ঘদিন থেকে ষড়যন্ত্র করে আসছে।

    এ ব্যাপারে রাজাপুর উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা নুসরাত জাহান খান বলেন, লিখিত অভিযোগ পেয়ে বিষটি তদন্ত করা হচ্ছে, সত্যতা পেলে পরবর্তী আইনগত ব্যবস্থা নেয়া হবে।


    নাঈম /তন্বী

    0Shares

    এই পোস্টটি আপনার সামাজিক মিডিয়াতে শেয়ার করুন

    Leave a Reply

    Your email address will not be published.

    এই বিভাগের আরও খবর