জ্বালানি তেলের মূল্যবৃদ্ধি, চাঁপাইয়ে বেড়েছে রড-সিমেন্টের দাম - লালসবুজের কণ্ঠ
    শুক্রবার, ০৭ অক্টোবর ২০২২, ১০:৫৭ অপরাহ্ন

    জ্বালানি তেলের মূল্যবৃদ্ধি, চাঁপাইয়ে বেড়েছে রড-সিমেন্টের দাম

    • আপডেটের সময় : শুক্রবার, ১২ আগস্ট, ২০২২

    লালসবুজের কণ্ঠ রিপোর্ট,


    জ্বালানি তেলের মূল্যবৃদ্ধির প্রভাব পড়েছে চাঁপাইনবাবগঞ্জে রড-সিমেন্টের দামে। কোম্পানিভেদে প্রতি বস্তা সিমেন্টে ৩০-৫০ টাকা পর্যন্ত দাম বেড়েছে। রডের দামেও ঊর্ধ্বগতি। এতে বিপাকে পড়েছেন ঠিকাদারি প্রতিষ্ঠান, ভবন মালিক ও ব্যবসায়ীরা।

    শুক্রবার (১2 আগস্ট) বিকেলে জেলার বিভিন্ন রড-সিমেন্টের দোকানে গিয়ে এ তথ্য জানা গেছে।

    জেলা শহরের আরামবাগ এলাকার মেসার্স নূর এন্টারপ্রাইজের মালিক রনি আলী বলেন, গত শুক্রবারের আগে যে সিমেন্টের দাম ছিল ৫২০ টাকা বস্তা, এখন তা কিনতে হচ্ছে ৫৫০ থেকে ৫৬০ টাকা দিয়ে। আর গাড়ি ভাড়া তো আছেই। এতে ভোক্তাদের কাছে প্রতি বস্তায় প্রায় ৪০ টাকা বেশি দরে বিক্রি করতে হচ্ছে।’

    শিবগঞ্জ বাজারের রট-সিমেন্ট ব্যবসায়ী বসু আলী বলেন, গত চারদিনের ব্যবধানে সিমেন্টের দাম বস্তায় প্রায় ৩০-৫০ টাকা বেড়েছে। এতে আমাদের ব্যবসা করতেও হিমশিম খেতে হচ্ছে। কারণ পণ্যের দাম বেশি হওয়ায় পুঁজি বেশি লাগছে। ক্রেতারা রট-সিমেন্ট কিনতে এসে দামাদামি করছেন।’

    শিবগঞ্জ উপজেলার চককীর্তি বাজারের রড-সিমেন্ট ব্যবসায়ী সইবুর আলী জাগো নিউজকে বলেন, ‘তিনদিন আগে যে রডের দাম ছিল ৮৯ টাকা কেজি, আজ সেই রডের দাম ৯৬ টাকা। তেলের মূল্যবৃদ্ধির পর থেকে এখন পর্যন্ত রডের দাম কেজিতে প্রায় সাত টাকা বেড়েছে।’

    জেলা শহরে রড-সিমেন্ট কিনতে এসেছিলেন আসাদুল ইসলাম। তার সঙ্গে কথা হয় এই প্রতিবেদকের। তিনি বলেন, ‘গতবছর বাড়ির কাজ শুরু করেছিলাম। কিন্তু টাকার অভাবে শেষ করতে পারিনি। গত দুদিন ধরে শহরের বিভিন্ন দোকানে ঘুরছি রড-সিমেন্ট কিনবো বলে। তবে দাম বেশি হওয়ায় কিনতে পারছি না। ১০ দিন আগে যে এক বস্তা সিমেন্টের দাম ছিল ৫০০ টাকা, সেই সিমেন্ট বর্তমানে ৫৬০ টাকায় বিক্রি হচ্ছে। সাধারণ মানুষের নাগালের বাইরে চলে গেছে রড-সিমেন্টের দাম।’

    এদিকে জেলার বিভিন্ন এলপিজি গ্যাস সিলিন্ডারের দোকানে গিয়েও দাম বৃদ্ধির খবর পাওয়া গেছে। ১২ কেজি এলপিজি গ্যাস সিলিন্ডার বিক্রি হচ্ছে ১২৬০ থেকে ১৩০০ টাকায়। যা তিনদিন আগে বিক্রি হচ্ছিল ১২৩০ থেকে ১২৬০ টাকায়।

    জাতীয় ভোক্তা অধিকার সংরক্ষণ অধিদপ্তরের চাঁপাইনবাবগঞ্জ কার্যালয়ের সহকারী পরিচালক ফজলে এলাহী বলেন, ‘আমি গতকাল যোগদান করেছি। তবে বিভিন্ন পণ্যের মূল্যবৃদ্ধির কারণে কোনো অসাধু ব্যবসায়ী যাতে কোনো পণ্যের দাম বেশি না নিতে পারেন সেজন্য আগামীকাল থেকে সার্বিক পরিস্থিত দেখে ব্যবস্থা নেওয়া হবে।

     


    লালসবুজের কণ্ঠ/এস এস

     

     

     

    0Shares

    এই পোস্টটি আপনার সামাজিক মিডিয়াতে শেয়ার করুন

    Leave a Reply

    Your email address will not be published.

    এই বিভাগের আরও খবর