এবার রিফাতের পর প্রকাশ্যে নার্সকে খুন - লালসবুজের কণ্ঠ
    বৃহস্পতিবার, ১৮ অগাস্ট ২০২২, ০৫:৩৬ পূর্বাহ্ন

    এবার রিফাতের পর প্রকাশ্যে নার্সকে খুন

    • আপডেটের সময় : বৃহস্পতিবার, ২৭ জুন, ২০১৯

    ঠাকুরগাঁও সংবাদাতা:
    বরগুনায় স্ত্রীকে উত্ত্যক্ত করার জেরে প্রতিবাদ করায় স্বামী রিফাতকে কুপিয়ে হত্যার পর এবার ঠাকুরগাঁওয়ে একইভাবে হত্যার ঘটনা ঘটেছে। নারীকে উত্ত্যক্ত করার প্রতিবাদ করায় এক বখাটের (উত্ত্যক্তকারী) প্রকাশ্য ছুরিকাঘাতে নিহত হয়েছেন নার্স তানজিনা আক্তার (২০)।

    বৃহস্পতিবার (২৭ জুন) সকাল সাড়ে ৮টার দিকে রংপুর মেডিকেল কলেজ হাসপাতালের আইসিইউতে চিকিৎসাধীন অবস্থায় তার মৃত্যু হয়। নিহত তানজিনা আক্তার শহরের গ্রামীণ চক্ষু হাসপাতালের নার্স ও সালন্দর ইউনিয়নের মাদরাসাপাড়া গ্রামের হামিদ আলীর মেয়ে।

    জানা যায়, গত ২০ জুন ঠাকুরগাঁও শহরের মাদরাসাপাড়া এলাকায় জীবন নামে এক বখাটের ধারালো ছুরির আঘাতে গুরুতর আহত হন তানজিনা আক্তার।

    ওই দিন সকাল সাড়ে ৮টার দিকে তিনি বাড়ি থেকে বের হয়ে কর্মস্থলে যাওয়ার পথে আগে থেকে ওঁৎ পেতে থাকা বখাটে জীবন গতিরোধ করে প্রকাশ্যে তাকে এলোপাতাড়ি ছুরিকাঘাত করে। এ সময় তানজিনার চিৎকারে এলাকাবাসী ছুটে এলে জীবন পালিয়ে যায়। পরে এলাকাবাসী জীবনকে আটক করে পুলিশে সোপর্দ করে।

    নিহত তানজিনার বাবা হামিদ আলী অভিযোগ করে বলেন, জীবন প্রতিদিন এলাকার বিভিন্ন মেয়েদের উক্ত্যক্ত করত। আমার মেয়ে অন্যায় সহ্য করতে না পেরে উক্ত্যক্তকারী জীবনকে শাসন করে। এরই জেরে জীবন আমার মেয়েকে ছুরিকাঘাত করে।

    এ ঘটনার বিষয়ে ঠাকুরগাঁও সদর থানা পুলিশের ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) আশিকুর রহমান বলেন, ঘটনার দিন তাৎক্ষণিক অভিযান চালিয়ে অভিযুক্ত আসামি জীবনকে আটক করা হয়েছে। তদন্ত সাপেক্ষে পরবর্তী ব্যবস্থা নেয়া হবে।

    এ দিকে বুধবার (২৬ জুন) সকাল সাড়ে ১০টার দিকে বরগুনার সরকারি কলেজের সামনে নয়ন ও তার সহযোগী সন্ত্রাসীরা প্রকাশ্যে রামদা দিয়ে এলোপাতাড়ি কুপিয়ে গুরুতর আহত করে রিফাত শরীফকে (২৫)। এরপর অস্ত্র উচিয়ে বীরদর্পে এলাকা ত্যাগ করে তারা। পরে গুরুতর আহত অবস্থায় রিফাতকে প্রথমে বরগুনা সদর হাসপাতালে নেওয়া হয় এবং পরে বরিশাল শেরে বাংলা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে নেওয়া হলে সেখানে চিকিৎসাধীন অবস্থায় মারা যান রিফাত।

    ঘটনাটির ভিডিও সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যম ফেসবুকেও ছড়িয়ে পড়ে। এ ঘটনায় সারা দেশের মানুষ প্রতিবাদ জানাচ্ছেন। সোশ্যাল মিডিয়ায় ইতোমধ্যে ব্যাপক ক্ষোভের ঝড় উঠেছে। জড়িতদের গ্রেফতারে খোদ প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা নির্দেশ দিয়েছেন।

    109Shares

    এই পোস্টটি আপনার সামাজিক মিডিয়াতে শেয়ার করুন

    Leave a Reply

    Your email address will not be published.

    এই বিভাগের আরও খবর